খদ্দের সেজে ৩ যৌনকর্মীকে দলবদ্ধ ধর্ষণ

খদ্দেরের জন্য অপেক্ষা করছিলেন তিন যৌনকর্মী। সেখান থেকে তাদের কৌশলে তুলে নিয়ে দলবদ্ধ ধর্ষণ করেছে ৯ যুবক। দিল্লির এ ঘটনায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে ৭ জনকে।
পুলিশ সূত্রে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানায়, অভিযুক্তরা অধিকাংশই ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষী। তবে তাদের মধ্যে একজন হলো ক্যাবচালক।
ওই তিন তরুণী জানান, মঙ্গলবার রাতে দিল্লির লাজপত নগর মেট্রো স্টেশনে এক গ্রাহকের জন্য তারা অপেক্ষা করছিলেন। রাত সাড়ে এগারোটা একটি ক্যাবগাড়িতে চড়ে দু জন সেখানে উপস্থিত হয়। খদ্দের সেজে তারা কৌশলে নিয়ে এ কাজ করেছে।
গৌতম বুদ্ধ নগরের পুলিশ সুপার বৈভব কৃষ্ণা বলেন, “তাদের মধ্যে প্রতি গ্রাহক পিছু ৩,০০০ রুপি করে চুক্তি হয়। ওই তিন নারীকে বলা হয়, তাদের নয়ডা সেক্টর ১৮-এ যেতে হবে। সেখানে তাদের রয়েছেন আরও দুজন গ্রাহক। অগ্রিম হিসেবে তাদের ৩৬০০ রুপিও দেওয়া হয়।”
পরে ওই যৌনকর্মীদের নির্ধারিত ঠিকানার বদলে একটি ফার্ম হাউসে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে পৌঁছায় আরও ৭ জন। তিন যৌন কর্মী ঘটনার আঁচ বুঝতে পেরে ফিরে যেতে চেয়েছিলেন বলে পুলিশকে জানিয়েছেন।
কিন্তু তাদের কথা গ্রাহ্য না করে একে একে ৯ জন তাদের দলবদ্ধ ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে এক অভিযুক্ত তাদের ফের লাজপত নগর মেট্রো স্টেশনে পৌঁছে দেয়। এরপর ভোর পাঁচটার দিকে ১০০ ডায়ালে ফোন করে ধর্ষিতা তিন নারী অভিযোগ জানালে বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।
অভিযুক্তরা তিন যৌনকর্মীকে মারধর করে অগ্রিম দেওয়া টাকাও ছিনিয়ে নেয় বলে অভিযোগ। এই ঘটনায় সাতজনকে গ্রেপ্তার করা হলেও ক্যাবচালক-সহ দুজন এখনো পলাতক।

Leave a Reply

%d bloggers like this: