এক কলাম-১২

মঈনুল হাসান পলাশ॥
শোনা যাচ্ছে, কক্সবাজার সৈকতের শৈবাল পয়েন্ট পর্যন্ত বিচ এবং তৎসংলগ্ন জায়গা ক্রমান্বয়ে নিজেদের আওতায় নিয়ে নেবে বিমানবাহিনী।
লাবণী পয়েন্টে বিজিবির স্থাপনা আছে। বিজিবির রেস্ট হাউস এবং তাদের বিশাল রেষ্টুরেন্ট একদম বিচের ওপর। বিজিবি যদি ধীরে ধীরে আরো হাত বাড়ায় সমস্যা কি?
সুগন্ধা পয়েন্টের বিচটা নৌবাহিনীকে দিয়ে দিলে ভালো হয়।
আর কলাতলী বিচ থেকে শুরু করে সাবরাং পর্যন্ত পুরোটা সৈকত সেনাবাহিনীর আওতায় দিলে ষোলকলা পুরা হয়ে যাবে।
আমরা সিভিলিয়ানরা সাগরের পাশে থেকে করবোটা কি?
আমাদের প্রয়োজনটাই-বা কি?
-লেখকঃ সম্পাদক ও প্রকাশক-দৈনিক সমুদ্রকন্ঠ।

Leave a Reply

%d bloggers like this: