কান্নাকাটিতে অতিষ্ট হয়ে ব্লেড দিয়ে শিশুর গলা কেটে খুন করল মা!

সন্তানের কাছে সবচেয়ে নিরাপদ স্থান তার মায়ের কোল। কিন্তু সেই মা যখন সন্তানের গলা কেটে খুন করে তখন!‌ শুনতে অবাক লাগলেও এমন ঘটনাই ঘটিয়েছে ভারতের মহারাষ্ট্রের নাসিকের পঞ্চবটির বাসিন্দা যোগিতা মুকেশ পাওয়ার।
নিজের ১৪ মাস বয়সী কন্যা সারার গলা কেটে খুন করেছে ওই নারী। তাও সন্তানের ব্যবহারে অতিষ্ট হয়ে।
সংবাদমাধ্যম বিজনেস স্ট্যান্ডার্ড এক প্রতিবেদনে জানায়, ১৪ মাস বয়সী ওই শিশুকন্যা খুব কান্নাকাটি করত। আর তার জন্যই নাকি নিজের শিশু সন্তানকে এমন পাশবিকভাবে খুন করেছে যোগিতা।
পড়ে ওই নারীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তাকে আগামী ২০ জুলাই পর্যন্ত পুলিশি হেফাজতে পাঠানো হয়েছে।
তবে প্রথমে ওই নারী নিজের দোষ স্বীকার করতে চায়নি। প্রাথমিক জবানবন্দিতে সে বলে, এক আততায়ী তার বাড়িতে ঢুকে মেয়েকে খুন করেছে। সে তখন ঘরের বাইরে ছিল। ঘরে ফিরতেই তার উপরও হামলা চালায় আততায়ী।
কিন্তু যোগিতার এই বক্তব্য শোনার পর সন্দেহ হয় পুলিশের। কারণ ঘরে এমন কোন আলামত পায়নি পুলিশ। পাশাপাশি রক্তমাখা একটি ব্লেডও উদ্ধার করে পুলিস।
এরপর পুনরায় যোগিতাকে জেরা করলে, জেরার মুখে সে স্বীকার করে নেয় নিজের দোষ। পুলিশ ধারণা করছে, মানসিকভাবে বিধ্বস্ত হওয়ার কারণেই এই ঘৃণ্য কাজ করেছে ওই নারী।

Leave a Reply

%d bloggers like this: