পাথর ছুড়ার অভিযোগে ৩ বছরের ফিলিস্তিনি শিশু গ্রেফতার

মাত্র ৩ বছরের ফিলিস্তিনি শিশুকে তার বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে নিয়ে গেছে দখলদার ইসরাইলি সেনারা। গাড়িতে পাথর ছুড়ার অভিযোগে শিশুটিকে গ্রেফতার করেছে ইসরাইলি সেনার।
ইসরাইলি সেনাদের এমন বর্বরতা আর নিষ্ঠুরতায় সামাজিক মাধ্যমে নিন্দা জানাচ্ছে হাজার হাজার অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট।
মঙ্গলবার (৩০ জুলাই) ইসরাইলি সেনারা ৩ বছরের ওই ফিলিস্তিনি শিশু মুহাম্মাদ রবি ইলইয়ানকে তার বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে নিয়ে যান। খবর মিডেলইস্ট মনিটর ও জেরুজালেম পোস্টের।
সেনাদের দাবি, টহলরত সেনা গাড়ি লক্ষ্য করে পাথর ছুড়েছে ইলইয়ান।
ইসরাইলি সেনাদের সঙ্গে থানার দিকে হেঁটে যাওয়া বন্দি ইলইয়ানের নিষ্ঠুর এ গ্রেফতারের ভিডিও বিশ্ববিবেককে নাড়া দিয়েছে।
মঙ্গলবার সকালে ইলইয়ান ঘুম থেকে উঠলে তার মা তাকে জামা-কাপড় পরাচ্ছিলেন। এমন সময় একদল ইসরাইলি সেনা পূর্ব জেরুজালেম নগরীর ইসাইয়া এলাকায় অবস্থিত শিশুটির বাড়ি থেকে তাকে আটক করে নিয়ে যায়।
ইসরাইলি সেনাদের গাড়ি লক্ষ্য করে পাথর নিক্ষেপ করার অভিযোগে তিন বছরের শিশু মুহাম্মাদ রবি ইলইয়ানকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়া হয়।
ইসরাইলি দখলদার বাহিনীর দাবি, সোমবার ইসাইয়া এলাকায় সেনা অভিযান চলাকালে তিন বছরের শিশু মুহাম্মাদ রবি ইলইয়ান তাদের গাড়ি লক্ষ্য করে পাথর ছুড়ে মারে।
এ ঘটনায় অনেক মানবাধিকার ও মানবতাবাদী সংগঠন তাদের এ ঘৃণ্য এবং আজবকাণ্ডের কঠোর সমালোচনা করেন।
তাদের মতে, তিন বছরের শিশুকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য গ্রেফতার করা বড়ই হাস্যকর ও অদ্ভুত! তাকে গ্রেফাতারের দৃশ্যধারণ আরও হাস্যকর পরিস্থিতির জন্ম দিয়েছে।
জাতিসংঘের জরিপে বিগত কয়েক বছরের মতো এবারও ইসরাইল শিশু হত্যাকারী দেশ হিসেবে কালো তালিকাভুক্ত হয়েছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: