সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণ!

সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাক শব্দটি থেকেই এর অর্থ সম্পর্কে ধারণা পাওয়া যায়। সহজভাবে বললে, সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাক হলো নীরবে ঘটে যাওয়া হার্ট অ্যাটাক, যার তেমন কোনও লক্ষণ থাকে না।
তারপরও চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা কিছু লক্ষণ বের করেছেন যেগুলো দেখা দিলে দ্রুত ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে। তাদের মতে, এই উপসর্গগুলো দেখা দিলে সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাক হয়েছে এমনটি বলার সুযোগ নেই। তবে নিরাপদ থাকতে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে এবং এতে বড় ধরনের বিপদ থেকে রক্ষা পাওয়া যেতে পারে।
সাধারণত হার্ট অ্যাটাকের বেশ কয়েকটি উপসর্গ দেখা যায়। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি হলো- বুক ব্যাথা, শ্বাসকষ্ট এবং অতিরিক্ত ঘাম। তবে সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাকের ক্ষেত্রে এগুলো নাও দেখা যেতে পারে কিংবা দেখা গেলেও সবগুলোর পরিবর্তে বরং একটা উপসর্গ দেখা যেতে পারে। এ কারণে রোগী মনে করবেন তার হার্টে সমস্যা নেই, অন্য কোনও সমস্যা থেকেই এই লক্ষণ দেখা দিয়েছে। আর তখনই ঘটে বিপত্তি।
জার্মান স্বাস্থ্যভিত্তিক সাইট কার্ডিও-সিকিউর বলছে, সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণের মধ্যে রয়েছে ক্লান্তিভাব, অস্বস্তি, দুর্বলতা এবং মাথা ঘোরা। তবে এগুলো হওয়া মানেই সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাক নয়। এসব লক্ষণ দেখা দেয়ার সাথে সাথে দ্রুততার সাথে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে।
সাইলেন্ট হার্ট অ্যাটাক হওয়ার পর আরেকটি হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি তৈরি হয়। যা মারাত্মক হতে পারে। দ্বিতীয় হার্ট অ্যাটাকের কারণে হার্ট অকার্যকর হওয়ার মতো ঘটনাও ঘটতে পারে বলে সতর্ক করেছেন চিকিৎসকরা।

Leave a Reply

%d bloggers like this: