1. samudrakantha@gmail.com : সম্পাদক : সম্পাদক ও প্রকাশক
  2. aimrashed20@gmail.com : Amirul Islam Rashed : Amirul Islam Rashed

তিন কোটি টাকার ইয়াবা উদ্ধার, পৃথক অভিযানে গ্রেফতার ৯

  • Update Time : শুক্রবার, ১৩ মে, ২০২২
  • ২৮ Time View

পার্বত্য জেলা বান্দরবানে মাটি খুঁড়ে প্রায় তিন কোটি টাকার ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় দুজনকে আটক করে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। মাটির নিচ থেকে ৯০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধারের সময় আটক করা হয় লমংগ্যা তংচংগ্যা ও লাতাইমং তংচংগ্যা নামে দুজনকে।
বৃহস্পতিবার (১২ মে) দিবাগত রাতে অভিযান চালিয়ে তাদের ইয়াবাসহ আটক করা হয়। শুক্রবার (১৩ মে) বিকেলে বিজিবি জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শরিফুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ‌
বিজিবি জানায়, বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ধুমধুম ইউনিয়নের চাকমাপাড়া কলাজাইং আমের একটি স্থানে একটি পরিত্যক্ত বাড়িতে অভিযান চালানো হয়। এসময় দুজন আটক করা হয়। তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে পরিত্যক্ত বাড়িটির মাটি খুঁড়ে ৯০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় আটককৃতদের জনকে থানায় সোপর্দ করা হয়েছে। এছাড়া দায়ের করা হয়েছে একটি মামলা। সেই মামলায় চারজন পলাতক রয়েছেন।
একই দিনে আরও দুটি অভিযানে ৪০ হাজার ৬০০ পিস ইয়াবা, মিয়ানমারের মুদ্রা ও স্বর্ণালঙ্কারসহ সংঘবদ্ধ মাদক এবং মানব পাচারকারী দলের সাত সদস্যকে আটক করে বিজিবি। তারা হলেন শফি উল্লাহ (৫৫), আনোয়ার হোসাইন (১৯), তৈয়বা বেগম (৪০), লাকী আক্তার (১৯), পারভেজ (১৬), জালাল (২৬) ও রেদওয়ান (১৯)।
বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে টেকনাফে অভিযান চালিয়ে মাদক, স্বর্ণ ও মিয়ানমারের মুদ্রাসহ তাদের আটক করা হয়। ‌‌‌‌‌
টেকনাফ ব্যাটালিয়নের (২ বিজিবি) অধিনায়ক লে. কর্নেল শেখ খালিদ মোহাম্মদ ইফতেখারের বরাত দিয়ে বিজিবি জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শরিফুল ইসলাম জানান, টেকনাফের এলাকার নাফ নদীর পাশে থাকা একটি বাড়িতে মিয়ানমার থেকে পাচার করে আনা মাদকদ্রব্য মজুদ রয়েছে এমন তথ্যের ভিত্তিতে সেই বাসায় অভিযান চালানো হয়। এরপর ওই বাসায় থাকা চারজনকে আটকের পর জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।
জিজ্ঞাসাবাদের বাসায় থাকা সিলিন্ডারের পাশে বিশেষ কায়দায় লুকিয়ে রাখা ১০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। যার মূল্য ৩০ লাখ টাকা। এছাড়াও মিয়ানমারের প্রচলিত মুদ্রা দুই লাখ ৩০ হাজার ২০০ কিয়াত (বাংলাদেশি ১০ হাজার ৭৮৪ টাকা সমমান) এবং বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত মিয়ানমার নাগরিকদের বিদেশে পাচারকালে তাদের কাছ থেকে জোরপূর্বক রেখে দেওয়া আনুমানিক ৮৮ হাজার টাকা মূল্যমানের আনুমানিক ১৪ গ্রাম স্বর্ণালঙ্কার উদ্ধার করা হয়।
পৃথকভাবে হ্নীলার চৌধুরীপাড়া এলাকায় আটককৃত ব্যক্তিদের দেওয়া তথ্যমতে ১নং স্লুইসগেট নামক স্থান থেকে ৩০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। যার মূল্য ৯০ লাখ টাকা। পরে সেখান থেকে আরও তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়।
জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানিয়েছেন, আগে থেকে পারিবারিকভাবেই মাদক চোরাচালান এবং বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত মায়ানমারের নাগরিকদের মিয়ানমারসহ বিদেশে পাচারের সাথে জড়িত। এ পর্যন্ত তারা আনুমানিক ১৫০-১৬০ জন রোহিঙ্গা নাগরিককে বিদেশে পাচার করেছেন।

Share on your Facebook

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News .....

© All rights reserved Samudrakantha © 2019

Site Customized By Shahi Kamran